আজ শুক্রবার, ২২শে জানুয়ারি, ২০২১ ইং

পাওয়ার গ্রিডে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় তদন্ত কমিটি

  • আপডেট টাইম : November 18, 2020 2:41 PM

নিজস্ব প্রতিবেদক : নগরীর উপকণ্ঠ কুমারগাঁওয়ে বাংলাদেশ পাওয়ার গ্রিড ১৩২/৩৩ কেভি বিদ্যুৎ সরবরাহ উপকেন্দ্রে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় চার সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। সিলেট পল্লী বিদ্যুৎ উন্নয়ন ও বিতরণ বিভাগ-২ এর নির্বাহী প্রকৌশলীকে আহ্বায়ক করে এ তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়। কমিটিকে আগামী তিনদিনের মধ্যে পাওয়ার গ্রিড কোম্পানি অব বাংলাদেশ লিমিটেডের (পিজিসিবি) নির্বাহী পরিচালক (ওঅ্যান্ডএম) বরাবর তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করতে বলা হয়েছে।

পিজিসিবির উপ-মহাব্যবস্থাপক (এইচআরএম) রূপক মোহাম্মদ নাসরুল্লাহ্ জায়েদী স্বাক্ষরিত এক পত্রে এ নির্দেশনা দেয়া হয়। অপরদিকে পাওয়ার গ্রিডে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় ২০০ কোটি টাকার ক্ষতি হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করছেন সংশ্লিষ্টরা।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, আগুনে প্রায় ৭০ কোটি টাকার ২৫/৪১ এমবিএর দুটি ট্রান্সফরমার পুড়ে গেছে। ট্রান্সফরমারগুলোর বাইরের অংশ পুড়লেও ভেতরে কোনো ক্ষতি হয়েছে কি-না তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। এছাড়াও ৩৩ কেভি ফিডার ও বার ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় পুরো সিলেটে বিদ্যুৎ সরবরাহ বন্ধ রয়েছে। বেলা সাড়ে ১১টা থেকে সিলেট নগরী, আশপাশের বিভিন্ন এলাকা, ছাতক ও সুনামগঞ্জ বিদ্যুৎহীন রয়েছে। ফলে প্রায় সাড়ে চার লক্ষাধিক গ্রাহক দুর্ভোগে পড়েছেন।

সিলেট পল্লী বিদ্যুৎ উন্নয়ন ও বিতরণ বিভাগের প্রধান প্রকৌশলী মোকাম্মেল হোসেন বলেন, আমাদের প্রায় চার লাখ ৩০ হাজার গ্রাহক আছেন। বিদ্যুৎ ব্যবস্থার বিপর্যয় হওয়ায় প্রায় তিন লক্ষাধিক গ্রাহক দুর্ভোগে পড়েছেন। বিপর্যয় কাটিয়ে উঠতে আমরা চেষ্টা করছি। গ্রিডের লোকজনও অবিরাম কাজ করছেন। তবে কখন বিদ্যুৎ আসবে তা বলা যাচ্ছে না। আগুনে অনেকগুলো যন্ত্র পুড়ে গেছে। এগুলো সিলেটে নেই।

সিলেটের জেলা প্রশাসক এম কাজি এমদাদুল ইসলাম জানান, বিদ্যুৎ সরবরাহ সচল করতে সংশ্লিষ্টরা কাজ করছেন। ঢাকা থেকেও একটি টিম সিলেটে আসছে।

Print Friendly, PDF & Email
  •  
  •  
  •  
  •  

নিউজটি শেয়ার করুন..

এই সম্পর্কিত আরও নিউজ