১৭ আগস্ট ২০১৭


কমলগঞ্জে পৃথক ঘটনায় দুটি লাশ উদ্ধার

শেয়ার করুন

পিকলু চক্রবত্তী, মৌলভীবাজার থেকে : মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলার ভানুগাছ রেলওয়ে স্টেশনের অদূর থেকে ট্রেনে কাটা রুবেল মিয়া (২২) নামক এক যুবকের লাশ উদ্ধার করা হয়। নিহত রুবেল মিয়া কমলগঞ্জ পৌরসভার কুমড়া কাপন এলাকার মাহমুদ মিয়ার ছেলে। আবার একই সাথে কমলগঞ্জের ভানুগাছ বাজার এলাকায় গলায় ফাঁস দিয়ে মৃত্যুবরণকারী এক গৃহবধূর লাশ উদ্ধার করা হয়। দুটি লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য মৌলভীবাজার সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

বৃহস্পতিবার সকাল ৮টায় রেলপথে দেহ থেকে এক হাত ও মাথা বিচ্ছিন্ন অবস্থায় যুবকের লাশ দেখে এলাকাবাসী ঘটনাটি জানায়।

ভানুগাছ রেলওয়ে স্টেশন মাস্টার মো: শাহাবউদ্দীন ফকির জানান,বুধবার রাতের কোন একটি ট্রেনে কাটা পড়ে এ যুবকের মৃত্যু হয়।

নিহত যুবকের নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক স্বজনরা সন্দেহ প্রকাশ করে জানান, রুবেলকে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করে পরে মৃতদেহ রেলপথে রেখে গেছে হত্যাকারীরা।

শ্রীমঙ্গল রেলওয়ে থানার ওসি আবু বকর ট্রেনে কাটা যুবকের লাশ উদ্ধারের সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, দেহ থেকে তার এক হাত ও মাথা বিচ্ছিন্ন হয়ে কিছু দূরে পড়েছিল লাশটি ময়না তদন্তের জন্য মৌলভীবাজার সদর হাসপাতালে প্রেরণ করা হচ্ছে। রেলওয়ে পুলিশ আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহন করবে।

অপরদিকে ভানুগাছ বাজার চৌমুহনা এলাকার হালিম মিয়ার স্ত্রী গৃহবধূ আরসোনা বেগম(৩৫)-এর লাশ নিজ ঘরের চালের সাথে গলায় ফাঁস দেওয়া অবস্থায় উদ্ধার করে কমলগঞ্জ থানার পুলিশ।

কমলগঞ্জ থানার ওসি বদরুল হাসান ফাঁস দিয়ে গৃহবধূর মৃত্যুর সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, এ ব্যাপারে থানায় একটি অপমৃত্যু দায়ের হয়েছে। আর লাশটি ময়না তদন্তের জন্য মৌলভীবাজার সদর হাসপাতালে প্রেরণ করা হচ্ছে।

 

(আজকের সিলেট/১৭ আগষ্ট/প্রতিনিধি/এমকে/ঘ.)

শেয়ার করুন