৮ সেপ্টেম্বর ২০১৭


কোতোয়ালীর ওসির বিরুদ্ধে অসৌজন্যমূলক আচরণের অভিযোগ বিএনপির

শেয়ার করুন

ডেস্ক রিপোর্ট : পুলিশী বাধার কারণে কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে রোহিঙ্গা নির্যাতনের প্রতিবাদে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করতে পারেনি সিলেট জেলা ও মহানগর বিএনপি। শুক্রবার সকাল ১০টায় নগরীর কোর্ট পয়েন্টে এ মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল।

সিলেট জেলা বিএনপির সভাপতি আবুল কাহের চৌধুরী শামীম, মহানগর বিএনপির সভাপতি নাসিম হোসাইন, জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আলী আহমদ ও মহানগর বিএনপির ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক ইমদাদ হোসেন চৌধুরী গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে পুলিশী বাধার নিন্দা জানিয়ে বলেন, মানববন্ধনে কোতোয়ালী থানার ওসি গৌসুল হোসেন বিএনপি নেতাকর্মীদের সাথে অসৌজন্যমূলক আচরণ করে কর্মসূচি পালন করতে দেননি। তার এমন আচরণ সিলেটের রাজনীতির জন্য অশুভ সংকেত বলেও মন্তব্য করেন তারা।

বিএনপি নেতৃবৃন্দ বলেন, পুলিশের এই কর্মকর্তার আচরনে মনে হয়েছে আমরা পুলিশী রাষ্ট্রে বসবাস করছি। পুলিশের স্বৈরাচারী আচরণ ভবিষ্যৎ রাজনীতির জন্য অত্যন্ত দুঃখজনক। ইতিহাসের মধ্যে সবচেয়ে বর্বরোচিত মুসলিম হত্যা মায়ানমারে চলছে। খুন, ধর্ষণ, জ্বালানো-পোড়ানো, নির্বিচারে গণহত্যা সহ সর্বপ্রকারে জুলুম নিপীড়ন চলছে। তারা জাতিগত বিদ্বেষের কারণে নির্বিচারে মুসলিম হত্যা করছে। এই সকল ঘটনাকে নিন্দা জানানোর জন্য যখন বিএনপি কর্মসূচি ঘোষনা করেছে সেই কর্মসূচিতে বাধা প্রদান করা মানে হচ্ছে মিয়ানমারে সকল অপর্কমকে সমর্থন করা। পুলিশের এই কর্মকর্তা মানববন্ধন কর্মসূচিতে বাধা প্রদান করে প্রমাণ করলেন মিয়ানমারের রোহিঙ্গা মুসলমানদের হত্যা ও বর্বরোচিত নির্যাতন তিনি সমর্থন করেন। এধরনের বাধা প্রদানের বিচার জনতার আদালতে করা হবে বলেও বিবৃতিতে উল্লেখ করেন বিএনপি নেতারা।

 

(আজকের সিলেট/৮ সেপ্টেম্বর/প্রেবি/এসটি/ঘ.)

শেয়ার করুন