৩ অক্টোবর ২০১৭


শ্রীমঙ্গল রেলস্টেশনে চরে গরু!

শেয়ার করুন

শ্রীমঙ্গল (মৌলভীবাজার) প্রতিনিধি : রাত তখন সাড়ে ৮টা। শ্রীমঙ্গল রেলওয়ে স্টেশনের প্রবেশমুখে ৩টি গরু বসে জাবর কাটছে। সেই গরুর মলমূত্রে স্টেশনের প্রবেশমুখ দিয়ে ঢোকাই দায় দুর্গন্ধে। কিন্তু কারও কিছু যেন বলার নেই, কেউ যেন দেখারও নেই।

পর্যটন নগরী শ্রীমঙ্গলের রেলওয়ে স্টেশনে গরুসহ গবাদি পশুর অবাধ চলাচল বিরক্তির উদ্রেক করছে সবার। দিনে-রাতে রেলস্টেশনের এদিক-সেদিক ঘুরে এসব পশু ময়লা-দুর্গন্ধ বাড়িয়ে চলেছে আরও।

এসবের পাশাপাশি স্টেশনের সামনে গাড়ির অবৈধ পার্কিং শ্রীমঙ্গল রেলওয়ে স্টেশন হয়ে চলাচলকারী যাত্রীদের ফেলছে চরম ভোগান্তিতে।

স্টেশনে গবাদি পশু প্রবেশ নিয়ন্ত্রণে যেমন নেই কোনো নজর। তেমনি নেই তাদের ময়লা বর্জ্য পরিচ্ছন্ন করার কোনো উদ্যোগ বা স্টেশনের সম্মুখ থেকে অবৈধ পার্কিং উচ্ছেদের কার্যক্রমও।

রোববার রাতে স্টেশনের সামনে গিয়ে দেখা যায়, প্রায় ৫-৬টি ট্রাক সারিবদ্ধভাবে দাঁড়ানো। গাড়িগুলোর মালামাল বহনের ক্ষমতা দেড় টন থেকে পাঁচ টন। ট্রাক ছাড়াও অন্যান্য গাড়ির অবৈধ পার্কিংও রয়েছে। পশুর অবাধ প্রবেশের চিত্র ক্যামেরায় তুলতেই জহির নামে একজন বললেন, বেশ কিছু গরু স্টেশনে ঘোরা ফেরা করে এবং রাতে এখানেই থাকে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একজন বলেন, এই দেখেন গাড়ির অবৈধ পার্কিং। শ্রীমঙ্গল স্টেশন কর্তৃপক্ষ মাসোয়ারার (মাসিক নির্দিষ্ট পরিমাণ টাকা) ভিত্তিতে ওই ছোট-বড় ট্রাকসহ নানান গাড়িগুলো রাতব্যাপী এখানে পার্কিং করার সুব্যবস্থা করে দেয়।

এ বিষয়ে যোগাযোগ করলে সহকারী স্টেশন মাস্টার মো. সাখাওয়াত হোসেন বলেন, গরুগুলো পার্শ্ববর্তী বাড়ির মালিক কাদির মিয়ার। মাঝে মাঝে গরুগুলো এখানে চলে আসে। আমরা তাড়িয়ে দিলেও ওরা আসে।

গাড়ির অবৈধ পার্কিংয়ের অভিযোগের ব্যাপারে সাখাওয়াত হোসেন বলেন, অভিযোগটি সত্য নয়।

 

(আজকের সিলেট/৩ অক্টোবর/ডি/কেআর/ঘ.)

শেয়ার করুন