১ নভেম্বর ২০১৭


অবৈধ দখলদারদের কবলে তারাপুর চা বাগান

শেয়ার করুন

মুহিত চৌধুরী (অতিথি প্রতিবেদক) : বহুল আলোচিত তারাপুর চা বাগানটি অযত্ন অবহেলায় দিন দিন ম্লান হয়ে যাচ্ছে। নেই আগের সেই পরিচর্চ্চা। অবাধে গাছ কেটে বিক্রি করা হচ্ছে সেই সাথে তৈরী হচ্ছে অবৈধ দোকান কোঠা। এমন অভিযোগ করেছেন পাঠানুটলা, গোয়াবাড়ি, করেরপাড়াসহ বাগানটির আসপাশের স্থানীয় জনগণ। তারা বিষয়টি সিলেটের জেলা প্রশাসককেও জানিয়েছেন।

জেলা প্রশাসককের কাছে পাঠানো অভিযোগ পত্রে তারা বলেন, ২০১৬ সালে মহামান্য সুপ্রিমকোর্টের রায়ে বাগানটি যখন পূনরায় দেবত্তর সম্পতি হয় তখন তারা আশা করেছিলেন বাগানটির আরো ব্যাপক উন্নয়ন হবে। কিন্তু বাস্তবে তা হয়নি।

তারা আরো অভিযোগ করে বলেন, গত এক বছরে চা বাগানের পরিচর্চ্চা অর্থাৎ ঘাস ছাটাই করা হয়নি কোন প্রকার সার প্রয়োগ করাও হয়নি। অথচ আগের মালিক জনাব রাগীব আলী শত শত সেইড গাছসহ একাশিয়া গাছ লাগিয়ে বাগানটিকে জীবন্ত করে রেখেছিলেন।

তারা বর্তমান মালিকের বিরুদ্ধে গুরুতর অভিযোগ এনে বলেন, বর্তমান মালিক পংকজ কুমার গুপ্ত বাগানের শত শত সেইড গাছ কেটে বাগানকে একটি পরিত্যাক্ত বাগানে পরিনত করেছেন। এছাড়া তিনি রাগীব রাবেয়া মেডিকেল কলেজের উত্তর পাশে চা গাছ উপড়ে ফেলে ১৮টি দোকান তৈরী করে তা বিক্রি করার তৎপরতা চালাচ্ছেন বলেও আরা অভিযোগ পত্রে উল্লেখ করেন।

 

(আজকের সিলেট/১ নভেম্বর/ডি/এসসি/ঘ.)

শেয়ার করুন