৩০ নভেম্বর ২০২২


১০ তারিখে ঢাকায় বিএনপির সমাবেশ কেউ ঠেকাতে পারবে না : আমির খসরু

শেয়ার করুন

নিজস্ব প্রতিবেদক : বিএনপির জাতীয় স্থায়ী কমিটির সদস্য ও সাবেক মন্ত্রী আমির খসরু মাহমুদ চৌধুরী বলেছেন, স্বৈরাচারী ফ্যাসিস্ট সরকার জনগণের ভয়ে পুলিশকে ব্যবহার করছে। অবৈধ দখলদার সরকারের কাছে এখন কোন কিছু নেই। বিদেশীরা যদি তাদের বিরুদ্ধে কিছু বলে তাদের মাথা ব্যাথা শুরু হয়। সাংবাদিকরা লেখালেখি করলে তাদের মাথা ঠিক থাকে না। আইন শৃঙ্খলা বাহিনীকে ব্যবহার করে গায়েবী মামলা দেয়। বোমা হামলা হয়, ককটেল বিস্ফোরণ হয়, গ্রেনেড হামলা হয় অথচ জনগণ কিছু জানে না অথচ গায়েবী মামলা দেয়া হয় বাংলাদেশের সর্বত্র বিএনপি নেতাদের বিরুদ্ধে। বিএনপির সমাবেশকে ভয় করে বলেই সরকার বাস, লঞ্চ, সকল যানবাহন সহ ইন্টারনেট বন্ধ করে দেয় আমাদের ১১ জন নেতাকে হত্যা করেছে এবং অনেক নেতাকর্মীরা পঙ্গু হয়ে গেছে সরকারের পুলিশ বাহিনী দ্বারা নির্যাতিত হয়ে। বাংলাদেশের আটটি সমাবেশ বন্ধ করতে পারেনি সরকার আর বিএনপির সমাবেশে জনতার ঢল নেমেছিল। আর আগুন সন্ত্রাস করতে গিয়ে ছাত্রলীগ, যুবলীগের নেতাকর্মীরা ধরা পড়েছিল আর সেই দ্বায় চাপিয়ে ছিল বিএনপির নেতাকর্মীদের উপর। এখন বলছে আগুন সন্ত্রাস করে বিএনপি নাকি ক্ষমতায় আসতে চায়। বিএনপির নেতাকর্মীরা ঘরে থাকতে পারে নি সরকার দলীয় পুলিশের জন্য। বিএনপির গণজোয়াড় সৃষ্টি হয়েছে, ১০ তারিখের সমাবেশ কেউ ঠেকাতে পারবে না। ফ্যাসিস্ট সরকার দখলদার সরকার আমাদের মাঠ নিয়ে চিন্তা করছে। আমাদের আন্দোলন কঠোর ভাবে চলবে তবে শান্তিপূর্ণ ভাবে চলবে আমাদের আন্দোলন যতদিন পর্যন্ত জনগণের ভোটের সরকার নির্বাচিত না হয়।

বুধবার বিকেলে নগরীর রেজিষ্ট্রারী মাঠে পুলিশের মিথ্যা মামলা, গায়েবী মামলা, পুলিশী নির্যাতন ও গ্রেফতারের প্রতিবাদে কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে সিলেট মহানগর বিএনপির কর্তৃক আয়োজিত বিক্ষোভ মিছিলপূর্ব বিক্ষোভ সমাবেশ প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

সিলেট মহানগর বিএনপির আহবায়ক আব্দুল কাইয়ূম জালালী পংকীর সভাপতিত্বে ও সদস্য সচিব মিফতাহ্ সিদ্দিকীর সঞ্চালনায় সমাবেশে প্রধান বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিএনপির চেয়ারপার্সনের উপদেষ্ঠা খন্দকার আব্দুল মুক্তাদির। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিএনপির চেয়ারপার্সনের উপদেষ্ঠা ড. এনামুল হক চৌধুরী, সিসিক মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী, কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক ডাঃ সাখাওয়াত হাসান জীবন, সহ সাংগঠনিক সম্পাদক কলিম উদ্দিন আহমদ মিলন, সিলেট জেলা বিএনপির সভাপতি আব্দুল কাইয়ুম চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট এমরান আহমদ চৌধুরী।

সমাবেশে প্রধান বক্তার বক্তব্যে বিএনপির চেয়ারপার্সনের উপদেষ্ঠা খন্দকার আব্দুল মুক্তাদির বলেন, হাসিনার সরকারের পায়ের নিচে কোন মাটি নেই। গায়েবী মামলা দেওয়া, দুষ্কৃতি করে সরকার টিকে থাকতে পারে না। দেশের মানুষের জানমাল রক্ষায় এবং মানুষের অধিকার আদায়ে এই মুহূতে জাতীয়তাবাদী দল বিএনপিকে দরকার। আর আগামী মাসে আমাদের সমাবেশ। আরও বলেন সকলকে ঐক্যবদ্ধ ভাবে কাজ করার জন্য আহবান করেন।

সমাবেশ শেষে একটি বিক্ষোভ মিছিল রেজিষ্ট্রারী মাঠ থেকে বের হয়ে শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে।

শেয়ার করুন