আজ বৃহস্পতিবার, ২রা এপ্রিল, ২০২০ ইং

সিলেটে ঝুলে আছে ১৫ হাজার পাসেপোর্ট, বিপাকে হজযাত্রীরা

  • আপডেট টাইম : March 2, 2020 9:37 AM

অতিথি প্রতিবেদক : প্রবাসী অধ্যুষিত সিলেটে মেশিন রিডেবল পাসপোর্টের (এমআরপি) জন্য হাহাকার চলছে। নির্ধারিত ফি এবং ফিঙ্গার দেয়ার ৬ মাসেও মিলছে না পাসপোর্টের ডেলিভারী। এ অবস্থায় চলতি বছরের হজ্বযাত্রীরা পড়েছেন সবচাইতে বেশী বিপাকে। পাশাপাশি শিক্ষা ও চিকিৎসার জন্য বিভিন্ন দেশে যেতে আগ্রহী ও ইমিগ্রেশন প্রত্যাশীরা পড়েছেন বেকায়দায়। সিলেট পাসপোর্ট অফিসে বর্তমানে ১৫ হাজার আবেদন ঝুলে আছে বলে জানা গেছে। পাসপোর্টের বুকলেট সংকটের কারণে এ অবস্থার সৃষ্টি হয়েছে বলে জানিয়েছে সংশ্লিষ্ট সূত্র।

কয়েকজন ট্রাভেল ব্যবসায়ীর সাথে কথা বলে জানা গেছে, ২০২০ সালের হজের রেজিস্ট্রেশন আগামীকাল সোমবার থেকে শুরু হচ্ছে। রেজিস্ট্রেশন প্রক্রিয়া চলবে আগামী ১৫ মার্চ পর্যন্ত। হজযাত্রীদের পাসপোর্টের স্ক্যান কপি দিয়ে রেজিস্ট্রেশন করতে হবে। যাদের পাসপোর্ট নেই-তারা রেজিস্ট্রেশন নিয়ে সমস্যায় পড়বেন বলে দাবি তাদের।

সিলেট নগরীর আম্বরখানা বড়বাজারের বাসিন্দা মানবাধিকার কর্মী আনাস হাবিব কলিন্স জানান, হজে যাবার জন্য তিনি গত ১৮ নভেম্বর সিলেট পাসপোর্ট অফিসে ফিঙ্গার দেন। কিন্তু,সাড়ে তিন মাসেও তিনি তার পাসপোর্ট ডেলিভারী পাননি। কবে নাগাদ পাসপোর্টটি ডেলিভারী হতে পারে-এ ব্যাপারে পাসপোর্ট অফিসের সংশ্লিষ্টরা তাকে নিশ্চিত কোন তথ্য জানাতে পারছে না। এ অবস্থায় হজে যাওয়া নিয়ে তিনি অনেকটা অনিশ্চয়তায় রয়েছেন। তার সাথে আরো কয়েকজন হজ্ব যাত্রী একই দিনে পাসপোর্টের ফিঙ্গার দেন-তাদের পাসপোর্টও এখনো ডেলিভারী হয়নি।

সিলেট পাসপোর্ট অফিসে পাসপোর্ট প্রদানে সময়ক্ষেপনের ব্যাপারে জকিগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের স্বাস্থ্য ও জনসংখ্যা বিষয়ক সম্পাদক আব্দুর রহমান সম্প্রতি প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী ইমরান আহমদ এমপি বরাবরে আবেদন করেন। আবেদনে তিনি সিলেটে পাসপোর্ট ডেলিভারী পাওয়ার ক্ষেত্রে গ্রাহকদের ভোগান্তি এবং হয়রানির বিষয়টি তুলে ধরেন। সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশ(এসএমপি)-এর মোগলাবাজার থানা এলাকায় সিলেট পাসপোর্ট অফিসের অবস্থান।

এ থানার ওসি আখতার হোসেন জানান, পাসপোর্ট ডেলিভারী নিয়ে গত কিছুদিন ধরে বেশ সমস্যা হচ্ছে। তিনি জানান,সংশ্লিষ্টদের সাথে যোগাযোগ করেও সিলেটের সাবেক এক যুগ্ম জেলা জজের মায়ের পাসপোর্টও গত তিন মাসেও ডেলিভারী হয়নি।

ফেডারেশন অব বাংলাদেশ চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রি (এফবিসিসিআই)-এর সদস্য ও সিপার এয়ার সার্ভিসের স্বত্বাধিকারী খন্দকার সিপার আহমদ জানান, সিলেটে পাসপোর্ট ডেলিভারীর ক্ষেত্রে দীর্ঘসূত্রতায় তারা উদ্বিগ্ন।

তিনি বলেন, হজযাত্রীদের প্রি-রেজিস্ট্রেশন এরই মধ্যে শেষ হলেও ২ মার্চ থেকে শুরু হবে মূল রেজিস্ট্রেশন। পাসপোর্ট ছাড়া এ রেজিস্ট্রেশন হবে না বলে জানান তিনি।

তিনি বলেন, প্রবাসী অধ্যুষিত সিলেট ও চট্টগ্রামে মূলত পাসপোর্টের চাহিদা বেশী।

হজ এজেন্সীস এসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (হাব) সিলেট চ্যাপ্টারের সাধারণ সম্পাদক ও লতিফ ট্রাভেলসের স্বত্বাধিকারী জহিরুল কবির চৌধুরী শীরু জানান, সিলেটে পাসপোর্টের মারাত্মক সংকট চলছে। গেল অক্টোবর-নভেম্বরে অনেক আবেদনকারী এখনো পাসপোর্ট ডেলিভারী পাননি। এ সংকট নিরসনে তারা শিগগিরই পাসপোর্ট অফিসের সংশ্লিষ্টদের সাথে সাক্ষাতে যাবেন। হাব সিলেট চ্যাপ্টারের প্রেসিডেন্ট মোতাহের হোসেন বাবুল সম্প্রতি বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রীর কাছে সিলেটে পাসপোর্ট সংকটের বিষয়টি তুলে ধরেন।

এ ব্যাপারে সিলেট পাসপোর্ট অফিসের উপ-পরিচালকের সাথে দফায় দফায় যোগাযোগের চেষ্টা করা হলেও তিনি মোবাইল রিসিভ করেননি।

তবে, সিলেট আঞ্চলিক পাসপোর্ট অফিসের সুপারিনটেনডেন্ট এস এম জাকির হোসেন জানান, মূলত গত ৬ মাস ধরে পাসপোর্ট ডেলিভারী নিয়ে সমস্যা হচ্ছে।

তিনি জানান, আগে যেখানে প্রতিদিন গড়ে ৩শ’ পাসপোর্ট ডেলিভারী দেয়া হতো ; বর্তমানে তা অর্ধেকে নেমে এসেছে। গত ৬ মাসে অন্তত ১৫ হাজার পাসপোর্ট ডেলিভারীর জন্য ঝুলে আছে জানিয়ে এ কর্মকর্তা বলেন, পাসপোর্ট ডেলিভারীর জন্য প্রতিদিন তাদের অফিসে বিপুল লোক সমাগম হয়। তাদের সামাল দিতে গিয়ে তাদের দারুণ বেগ পোহাতে হচ্ছে। পাসপোর্ট সময়মতো ডেলিভারী না হওয়ায় অনেকে শিক্ষা সফর কিংবা রোগী নিয়ে সমস্যায় রয়েছেন।

এ সংকট সারাদেশে চলছে জানিয়ে তিনি বলেন, পরিস্থিতি উত্তরণের চেষ্টা চলছে। আমদানীকৃত বুকলেট দেশে এলেই সংকট কেটে যাবে বলে জানান তিনি।

সিলেটের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মো: আসলাম উদ্দিন জানান, সিলেটে পাসপোর্ট সংকটের বিষয়টি কেউ তাদের নজরে আনেনি। সংকট উত্তরণে পাসপোর্ট অফিস সংশ্লিষ্টদের সাথে কথা বলবেন বলে জানান তিনি।

Print Friendly, PDF & Email

নিউজটি শেয়ার করুন..

এই সম্পর্কিত আরও নিউজ